মরিয়া হয়ে চেষ্টা করার নামই সফলতা

চেষ্টার নেশা, সফলদের একমাত্র পেশা

চেষ্টা বিষয়ক সব লেখার মূল পাতা

জ্যামের কারণে পরীক্ষার হলে পৌছতে দশ মিনিট দেরী হলে, পরেরদিন ঠিকই খেয়াল করে দেড়-ঘন্টা আগে বাসা থেকে বের হও। যাতে ট্রাফিক জ্যাম, রাস্তার মিছিল, ঝড়-বৃষ্টি কোনকিছুই তোমাকে দেরি করাতে না পারে। পাঁচ ঘন্টা লাইনে দাড়িয়ে থাকার পরেও কাউন্টারে গিয়ে বাসের টিকেট না পেলে, তুমি হাল ছেড়ে দাও না। অন্য সিস্টেমে, অল্প কিছু টাকা বেশি দিয়ে হলেও টিকেট ম্যানেজ করে ফেলো। কারেন্ট নাই বলে টিভিতে খেলা দেখতে না পারলে তুমি কিন্তু হাত পা ছেড়ে বসে থাকো না। মোবাইল দিয়ে ক্রিকইনফোতে চোখ রাখো। কারেন্ট আসার সাথে সাথে ইউটিউবে হাইলাইটস দেখে ফেলো। পকেটে টাকা না থাকলেও, ক্যামনে ক্যামনে জানি টাকা ম্যানেজ করে সেন্টমার্টিন চলে যাও বন্ধুদের সাথে।

অথচ প্রেম করার টাইম আসলেই তোমার সাহসে আর কুলায় না। এক মাস-দুই মাস, এক-দুই বছর চলে গেলেও সাহস করে সামনে গিয়ে দাঁড়াতে পারো না। এইটা শুধু তোমার ক্ষেত্রে না। দুনিয়ার ৯০ ভাগ প্রেমই প্রপোজ কারার আগেই হারিয়ে যায়। শুনো, একটা প্রেম সফল করার জন্য অনেক অনেক চেষ্টা, অনেক অনেক ফন্দি ফিকির করে পিছনে লেগে থাকতে হয়। দুই-একবার রিজেক্ট করে দিলেও বন্ধু হওয়ার চেষ্টা করতে হয়। ছলেবলে কৌশলে বারবার প্রিয়জনের কাছে থাকতে পারলেই প্রেম হবে। আর অল্পতে টায়ার্ড হয়ে ছেড়ে দিলে, প্রিয়জন অন্য কারো প্রিয় হয়ে যাবে। আর তুমি গান ধরবে- "ফাইট্টা যায়, ও আমার বুকটা ফাইট্টা যায়"।

প্রেমের মতো; লাইফের ড্রিম, লক্ষ্যগুলোতে সফল হতে চাইলে, লক্ষ্যের পিছনে লেগে থাকতে হবে। এক দুই বার হোঁচট খাবে, অনেক অনেক চেষ্টা করেও দেখা যাবে কিছুই আউটপুট পাওয়া যাচ্ছে না। তারপরেও চেষ্টা চালিয়ে যেতে হবে। জীবনে যা কিছুই করতে চাও না কেনো, একদিনে সেটা পেয়ে যাবে না। বাসের টিকেট, খেলা দেখা, বন্ধুদের সাথে ঘুরতে যাওয়ার জন্য যতটুকু ডেসপারেট, তার চাইতেও বেশি ডেসপারেট না হলে, তোমার স্বপ্ন নিজে নিজে ফ্রাই হয়ে তোমার প্লেটে চলে আসবে না।

নরম বিছানা, আরামের সোফা থেকে উঠে দাড়াতে হবে। আড্ডা কমিয়ে কাজে নামতে হবে। নিজের দুর্বলতা কাটিয়ে উঠার চেষ্টা করতে হবে। প্রয়োজন হলে অন্য কারো হেল্প নিতে হবে। কোনদিন রানের খাতা খোলার আগেই আউট হয়ে গেলে, লজ্জায় মুখ লুকিয়ে পালিয়ে যাওয়া যাবে না। তাহলে সেঞ্চুরি করার স্বাদ কোনদিনও পাবে না। বরং একদিন ডাক মারলেও পরেরদিন আবার মাঠে নামতে হবে। চেষ্টা করতে হবে। উপরে উঠার রাস্তা খুঁজতে হবে। লেগে থাকলে একদিন না একদিন সে রাস্তা ঠিকই পেয়ে যাবে। আর এভাবেই একটার পর একটা সিঁড়িতে পা ফেলে সফলতার শিখরে পৌঁছে যেতে পারবে।

সঙ্গেই থাকুন::

হুট হাট করে মাঝে মধ্যে লেখা আসবে


FB post




Question or Feedback:

যদি লোকসম্মুখে প্রশ্ন জিগ্গেস করতে বা উপদেশ, বকাঝকা, গালাগালি, হুমকি দিতে সংকোচ লাগে তাইলে ইমেইল করে দেন jhankar.mahbub@gmail.com